• শনিবার   ২৬ নভেম্বর ২০২২ ||

  • অগ্রাহায়ণ ১২ ১৪২৯

  • || ০৩ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

শরীয়তপুর বার্তা
ব্রেকিং:
যারা উন্নয়ন দেখে না, তারা চাইলে চোখের ডাক্তার দেখাতে পারে- প্রধানমন্ত্রী অর্থনীতির চাকা সচল রাখতে সক্ষম হয়েছি: প্রধানমন্ত্রী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে আইওআরএ মন্ত্রীদের সাক্ষাৎ যোগাযোগ সম্প্রসারণে বাংলাদেশের সহযোগিতা চায় আমিরাত আ.লীগ স্বাস্থ্য খাতকে সর্বোচ্চ অগ্রাধিকার দেয়: প্রধানমন্ত্রী এমপিদের ভবন প্রাঙ্গণে মীনা বাজার স্থাপন আনন্দের: স্পিকার ব্যাংকে টাকা না থাকার গুজবে চোরেরা সুযোগ নেবে: প্রধানমন্ত্রী ‘যা চাইবেন তার চেয়ে বেশি দেবো, ওয়াদা দেন নৌকায় ভোট দেবেন’ মালয়েশিয়ার নতুন প্রধানমন্ত্রীকে শেখ হাসিনার অভিনন্দন সচিব সভায় ১০ নির্দেশনা দেবেন প্রধানমন্ত্রী

বিশ্ব নিরামিষ দিবস আজ

শরীয়তপুর বার্তা

প্রকাশিত: ১ অক্টোবর ২০২২  

১ অক্টোবর, আজ বিশ্ব নিরামিষ দিবস আজ। প্রতি বছর প্রতি মাসের নির্দিষ্ট কিছু দিনে বিভিন্ন দেশে কিছু দিবস পালিত হয়। ঐ নির্দিষ্ট দিনে অতীতের কোনো গুরুত্বপূর্ণ ঘটনাকে স্মরণ করা বা গুরুত্বপূর্ণ বিষয়ে জন সচেতনতা তৈরি করতেই এই সব দিবস পালিত হয়। পালনীয় সেই সব দিবস গুলোর মধ্যে একটি হলো বিশ্ব নিরামিষ দিবস। 

বিশ্বের বিভিন্ন দেশের ন্যায় আজ বাংলাদেশেও পালিত হচ্ছে বিশ্ব নিরামিষ দিবস। ১৯৭৭ সালের ১ অক্টোবর থেকে নিরামিষ দিবসটি পালিত হয়ে আসছে। নর্থ আমেরিকান ভেজিটেরিয়ান সোসাইটি (NAVS) দ্বারা নিরামিষ জীবনযাত্রার স্বাস্থ্য, নৈতিক, মানবিক এবং পরিবেশগত সুবিধার বিষয়ে সচেতনতা আনার জন্য প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল। ১৯৭৮ সালে ইন্টারন্যাশনাল ভেজিটেরিয়ান ইউনিয়নের দ্বারা আরো অনুমোদিত, পুরো অক্টোবর মাসটিকে নিরামিষ সচেতনতা মাস হিসাবে পালন করা হয়।

নিরামিষ বা শাক-সবজি জাতীয় খাদ্যের উপকারিতা সম্পর্কে মানুষকে সচেতন ও উৎসাহিত করতে বিশ্বের বিভিন্ন দেশে দিবসটি পালন করা হয়। বাংলাদেশেও দিবসটি উপলক্ষে বিভিন্ন কর্মসূচি পালিত হয়। 

পুষ্টিবিদরা জানান, নিরামিষ জাতীয় খাবার স্বাস্থ্যের জন্য উপকারী। নিরামিষভোজীরা আমিষভোজীদের চেয়ে দীর্ঘায়ু হন। তাদের হৃদরোগ, ডায়াবেটিস, ক্যান্সার, উচ্চ রক্তচাপ, স্থলতাজনিত শারীরিক সমস্যা কম হয়। এ খাবারে প্রচুর পরিমাণে উদ্ভিজ্জ তন্তু, ভিটামিন সি, ভিটামিন ই, ফলিক অ্যাসিড, ম্যাগনেশিয়াম, সম্পৃক্ত স্নেহ পদার্থ ও প্রচুর পরিমাণে উদ্ভিজ্জ রাসায়নিক পদার্থ। 

নিরামিষভোজীদের উচ্চ কোলেস্টেরলজনিত বা নিম্ন রক্তচাপজনিত রোগ সাধারণত দেখা যায় না। তাদের হৃদরোগের আশঙ্কাও কম থাকে। খাদ্যতালিকায় বেশি ফল বা সবুজ শাকসবজি রাখলে শরীরে কম রাসায়নিক ও বিষাক্ত পদার্থের প্রভাব তৈরি হবে।

এটিই বহুদিন সুস্থভাবে বেঁচে থাকতে সহায়তা করে। উদ্ভিজ্জ ফ্যাটে কোনো রকম কোলেস্টেরল থাকে না। যদিও কোলেস্টেরল মানুষের কোষের জন্য বিশেষভাবে প্রয়োজনীয় তবু শুধু নিরামিষ খাবারের ওপর বেঁচে থাকলে শরীরের বিশেষ কোনো ক্ষতি হয় না। শরীর সবুজ শাকসবজি প্রয়োজনীয় কোলেস্টেরল জোগাড় করে নেয়। সতেজ সবজি গ্রহণে শরীর ও মনে অনেক বেশি সতেজতা বজায় থাকে।

নিরামিষভোজী মানুষের ক্ষেত্রে রেস্টিং মেটাবলিজম রেট অনেক বেশি। নিরামিষ শুধু সহজপাচ্যই নয়, এটি শারীরিক ফ্যাট বিপাকেও যথেষ্ট সহায়তা করে। নিরামিষ খাবারের রয়েছে অনেক উপকার। তাজা ফলমূল ও সবজি রাখতে হবে প্রতিদিনের খাবার তালিকায়।