• মঙ্গলবার   ৩০ নভেম্বর ২০২১ ||

  • অগ্রাহায়ণ ১৫ ১৪২৮

  • || ২৪ রবিউস সানি ১৪৪৩

শরীয়তপুর বার্তা

কাঁচা মুলা খাওয়ার আশ্চর্য উপকারিতা

শরীয়তপুর বার্তা

প্রকাশিত: ২৫ নভেম্বর ২০২১  

শীতকালের জনপ্রিয় একটি সবজি হচ্ছে মুলা। এই সবজিটি রান্না কিংবা কাঁচা দুইভাবেই খাওয়া হয়। তবে কাঁচা মুলা খাওয়ার মজাই আলাদা। বিশেষ করে সালাদে। মুলা খেতে যেমন সুস্বাদু তেমনি পুষ্টিতেও ভরপুর।

মুলাতে রয়েছে ভরপুর ভিটামিন ও মিনারেল। শীতকালে নিয়মিত এই সবজিটি খেলে তা আপনার দৈনিক ভিটামিনের চাহিদার অনেকটাই পূরণ করতে পারে। তাছাড়া মুলাতে ৯৫ শতাংশই পানি। মাত্র ৩ শতাংশ কার্বোহাইড্রেট থাকে। ফলে ওজন নিয়ে সচেতসতাংসরা, তারাও নির্ভয়ে খেতে পারেন।

মুলা ভিটামিনের ভান্ডার। এতে ভিটামিন বি১, বি২, বি৩, বি৫, বি৬, বি৯ রয়েছে। এছাড়া এতে বেশ ভালো পরিমাণে ভিটামিন সি রয়েছে। ফলে সুস্বাস্থ্য, রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতার উন্নতির জন্য নিয়মিত মুলা খেতেই পারেন।

তবে হ্যাঁ, অতিরিক্ত তাপমাত্রায় ভিটামিন নষ্ট হয়ে যায়। তাই কাঁচা খেলেই সম্পূর্ণ ভিটামিনের উপকারিতা পাবেন। খাওয়ার আগে গরম পানিতে ডুবিয়ে রগড়ে ধুয়ে নিন। এরপর খোসা ছাড়িয়ে আরো একবার ভালো করে ধুয়ে তারপর খান।

মুলাতে খনিজ উপাদানও কিন্তু কম নয়। এতে ক্যালসিয়াম, আয়রন, ম্যাগনেসিয়াম, ম্যাঙ্গানিজ, ফসফরাস, পটাসিয়াম ও জিঙ্কের মতো মিনারেল রয়েছে।

কাঁচা মুলা যেভাবে খাবেন

একেবারে দেশিয় কায়দায় খেতে পারেন। এক বাটি লাল মুড়ি নিন। এক ফোঁটা সর্ষের তেল দিয়ে মাখুন। এরপর ভালো করে ধোয়া একটি আস্ত মুলা নিন। সঙ্গে একটা মরিচও নিতে পারেন। এর স্বাদই আলাদা।

সন্ধ্যায় বা সকালের জলখাবার হিসাবে খেতে পারেন এই সুস্বাদু রেসিপিটি। এছাড়া সাইড ডিস হিসএবে খাওয়া সালাদেও মুলা দেওয়া যায়। দেখতেও বেশ লাগে। অনেকে মুলা পাতলা করে কেটে স্যান্ডউইচের মধ্যে দিয়ে খান। এতে বেশ একটা ক্রাঞ্চি টেক্সচার আসে। ফ্রেস, আর্থি ব্যাপারও আসে একটা। ট্রাই করতে পারেন।