• শনিবার   ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২১ ||

  • আশ্বিন ৩ ১৪২৮

  • || ১০ সফর ১৪৪৩

শরীয়তপুর বার্তা

ভেদরগঞ্জে মাছের পোনা অবমুক্ত

শরীয়তপুর বার্তা

প্রকাশিত: ৫ সেপ্টেম্বর ২০২১  

শরীয়তপুর প্রতিনিধিঃ
আজ রবিবার ভেদরগঞ্জ উপজেলা মৎস্য বিভাগের উদ্যোগে সরকারের রাজস্ব খাতের আওতায় ভেদরগঞ্জ উপজেলা সদরের খাদ্য গুদাম সংলগ্ন নদীতে পোনা মাছ অবমুক্তির মাধ্যমে কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার তানভীর আল নাসীফ।

সিনিয়র উপজেলা মৎস্য অফিসার মোঃ নজরুল ইসলাম এর সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি ছিলেন উপজেলা ভেটেরিনারি সার্জন ডাঃ মোহাম্মদ ফারুক হোসেন, সাবেক কাউন্সিলর আব্দুল হালিম তালুকদারসহ মৎস্য বিভাগের কর্মকর্তা ও স্ব স্ব ইউনিয়নের চেয়ারম্যানগন। এ বছর ভেদরগঞ্জ উপজেলা পরিষদ পুকুর,খাদ্যগুদাম সংলগ্ন নদী, ডিএম খালি নদী,সখিপুর খাল,চরভাগা গুচ্ছগ্রামের পুকুর, খাস মহল বাজার তহসিল অফিসের পুকুর,ভেদরগঞ্জ ও সখিপুর থানা পুকুর, চর কুমারিয়া ইউনিয়ন পরিষদের পুকুরসহ ২১ টি টি প্রাতিষ্ঠানিক জলাশয় ও প্লাবন ভূমিতে মোট ৪৪১.৩৮ কেজি রুই জাতীয় মাছের পোনা অবমুক্ত করা হয়।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপজেলা নির্বাহী অফিসার তানভীর আল নাসীফ বলেন,বাংলাদেশের প্রাণিজ আমিষের অন্যতম প্রধান উৎস হলো মাছ। কৃষি নির্ভর বাংলাদেশের আর্থসামাজিক উন্নয়নে মৎস্য খাতের অবদান অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। এ বিষয়টি অনুধাবন করেই স্বাধীনতার পর জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ১৯৭২ সালে এক জনসভায় ঘোষণা দিয়েছিলেন- ‘মাছ হবে দ্বিতীয় প্রধান বৈদেশিক মুদ্রা অর্জনকারী সম্পদ’। মৎস্য সেক্টরের গুরুত্ব উপলব্ধি করে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ১৯৭৩ সালে গণভবন লেকে মাছের পোনা অবমুক্ত করেন।

মৎস্য খাতের বহুমুখী কর্মকান্ডকে অধিকতর গতিশীল করার লক্ষ্যে বর্তমান গণতান্ত্রিক সরকার এ সেক্টরের উন্নয়নে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এর নেতৃত্বে ১৯৯৬ সাল হতে দেশব্যাপী জাঁকজমকপূর্ণভাবে জাতীয় মৎস্য সপ্তাহ উদযাপন করা হচ্ছে।

১৯৯৮ সালে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা উল্লেখ ‘জনগণের ব্যাপক অংশগ্রহণ নিশ্চিত করে মৎস্য চাষ ও সংরক্ষণ কার্যক্রমকে একটি সামাজিক আন্দোলনে পরিণত করার মাধ্যমে নতুন কর্মসংস্থান সৃষ্টি ও দারিদ্র্য বিমোচনের ক্ষেত্রে একবিংশ শতাব্দির চ্যালেঞ্জ মোকাবেলা করে জাতির জনকের সোনার বাংলা করার ক্ষেত্রে মৎস্য সেক্টর গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে ।

এরই ধারাবাহিকতায় প্রতি বছর মাননীয় প্রধানমন্ত্রী আনুষ্ঠানিকভাবে জাতীয় মৎস্য সপ্তাহের শুভ উদ্বোধন ঘোষণা করেন এবং গণভবন লেকে মাছের পোনা অবুমক্ত করেন। মৎস্য সেক্টরের উন্নয়নের ইপ্সিত এ গতির অন্যতম নিয়ামক হলো- ‘জাতীয় মৎস্য সপ্তাহ উদযাপন’। 
প্রাণিজ আমিষের জোগান বৃদ্ধি, কর্মসংস্থান ও নিরাপদ মৎস্য সরবরাহ নিশ্চিত করার লক্ষ্যে জাতীয় মৎস্য সপ্তাহ উদযাপনকালে, গণসচেতনতা সৃষ্টি ও উদ্বুদ্ধকরণের পাশাপাশি বিভিন্ন মৎস্য উন্নয়নমূলক কার্যক্রম বাস্তবায়ন করা হয়।