• মঙ্গলবার   ০৯ আগস্ট ২০২২ ||

  • শ্রাবণ ২৫ ১৪২৯

  • || ১২ মুহররম ১৪৪৪

শরীয়তপুর বার্তা

কৌশলে পদ্মা সেতু পার হচ্ছে মোটরসাইকেল

শরীয়তপুর বার্তা

প্রকাশিত: ২৭ জুন ২০২২  

শরীয়তপুর প্রতিনিধিঃ

মামুন খান (৩৫)। বাড়ি বরিশাল জেলার বাবুগঞ্জ থানার দেহরগতি গ্রামে। তিনি ঢাকা বাছাবি ফ্যাশন লিমিটেড নামের একটি শপিং মলে চাকরি করেন। গতকাল রোববার অফিস ছুটি থাকায় নিজ বাড়ি বরিশাল আসেন মামুন।

আজ সোমবার (২৭ জুন) সকাল ১০টায় তার অফিস করার কথা ছিল। তাই ঢাকা অফিস ধরার জন্য সকাল ৬টার দিকে বাড়ি থেকে মোটরসাইকেল করে পদ্মা সেতুর শরীয়তপুরের জাজিরা প্রান্তের টোল প্লাজায় আসেন। কিন্তু সরকার পদ্মা সেতুতে মোটরসাইকেল চলাচল নিষিদ্ধ করায় টোল প্লাজায় দায়িত্বরত পুলিশ প্রশাসন তার মোটরসাইকেল আটকে দেয়। পরে দুইঘন্টা অপেক্ষা করে পিকাপের উপর মোটরসাইকেল উঠিয়ে পদ্মাসেতু পাড় হন তিনি।

মামুন খান বলেন, বরিশাল থেকে ঢাকা যাওয়ার জন্য সকাল ৬টায় পদ্মা সেতুর জাজিরা প্রান্তে আসি। আমার সঙ্গে বড় ভাই জুয়েল এসেছে।  কিন্ত টোল প্লাজার দায়িত্বরত লোকজন আমার মোটরসাইকেল পাড় হতে দিচ্ছেন না। আমি জানতাম না যে আজ মোটরসাইকেল নিয়ে পদ্মা সেতু পাড় যাবে না। তাই দ্রুত ঢাকা যাওয়ার জন্য বিকল্প পথ বেছে নিয়েছি। পিকাপের উপর মোটরসাইকেল উঠিয়ে পদ্মা নদী পাড় হবো।

তারমত কয়েকশ মোটরসাইকেল চালক পদ্মা সেতু পাড় হওয়ার জন্য জাজিরা টোল প্লাজায় আসেন। তারা আস্তে আস্তে ফিরে যান। এখন আসছেন ফিলরে যাচ্ছেন। অনেকেই মোটরসাইকেল নিয়ে ফেরিতে পার হচ্ছেন।

মোটরসাইকেল চালক মো. নুরুল ইসলাম বলেন, সকাল পোনে ৭টায় মাওয়া প্রান্ত দিয়ে টোল দিয়ে পদ্মা সেতুর উপর দিয়ে জাজিরা প্রান্তে আসি। চা নাস্তা খাওয়ার পর আবার পদ্মা সেতু পাড় হয়ে ঢাকা যাব। কিন্তু যেতে পারলাম না। মনে অনেক কষ্ট। এখন ফেরিতে যেতে হবে।