• শুক্রবার   ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১ ||

  • আশ্বিন ২ ১৪২৮

  • || ০৯ সফর ১৪৪৩

শরীয়তপুর বার্তা

শরীয়তপুরে অসহায় মানুষের মাঝে শীতবস্ত্র ও ত্রাণ দিলেন সেনাবাহিনী

শরীয়তপুর বার্তা

প্রকাশিত: ১০ জানুয়ারি ২০২১  

শরীয়তপুর প্রতিনিধি:  ‍মুজিববর্ষে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ঐতিহাসিক স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে শরীয়তপুরের জাজিরা উপজেলার পূর্বনাওডোবা পাইনপাড়া মাঝিকান্দি এলাকার একটি চরে শীতবস্ত্র ও ত্রাণ বিতরণ করেন বাংলাদেশ সেনাবাহিনী।

আজ রোববার (১০ জানুয়ারি) বেলা সাড়ে ১১টার দিকে সদর দফতর ৯৯ কম্পোজিট ব্রিগেডের সার্বিক ব্যবস্থাপনায় ২৭ রিভারাইন ইঞ্জিনিয়ার ব্যাটালিয়নের তত্ত্বাবধানে, মহিমান্বিত সাতাশ আয়োজনে মাঝিরকান্দি চর, পাইনপাড়া চর ও তারাপাশা চর এলাকার অসহায় ও হতদরিদ্র মানুষের মাঝে এ শীতবস্ত্র ও ত্রাণ বিতরণ করেন সেনাবাহিনী।

শীতবস্ত্র ও ত্রাণের প্যাকেট হাতে পাইনপাড়া মাঝিকান্দি গ্রামের বাসিন্দারা সেনাবাহিনীর প্রতি কৃতজ্ঞতা জানিয়ে বলেন, আমারা গরিব মানুষ। সেনাবাহিনী সবসময় আমাদের সাহায্য সহযোগিতা করেন। ওই গ্রামের ওহাব মাঝি বলেন, যখন কেউ আমাদের পাশে নেই তখন সেনাবাহিনী আমাদের প্রতি সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছে। আমরা তাদের কাছে কৃতজ্ঞ।

শীতবস্ত্র ও ত্রাণ বিতরণ করেন, ৯৯ কম্পোজিট ব্রিগেডের কমান্ডার ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মোহাম্মদ কামরুল হাসান, এসজিপি, এনডিসি, এইচডিএমসি, পিএসসি ও ২৭ রিভারাইন ইঞ্জিনিয়ার ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে: কর্নেল মো: আফজাল হোসেন, পিএসসি। এ সময় সেনাবাহিনীর সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

সেনাবাহিনীরা জানান, পদ্মা সেতু সংলগ্ন জাজিরার মাঝিরকান্দি চর, পাইনপাড়া চর ও তারাপাশা চর এলাকার অসহায় ও হতদরিদ্র মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছে সেনাবাহিনী। মুজিববর্ষে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ঐতিহাসিক স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে ৫০ জনকে খাদ্যসামগ্রী  ও ২০০ জন পরিবারের মাঝে শীতবস্ত্র কম্বল বিতরণ করা হয়।

এর আগে সকাল ১০টার দিকে ২৮ ইস্ট বেঙ্গল রেজিমেন্ট জাজিরার নাওডোবা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে ৪০০ জনকে খাদ্যসামগ্রী  ও ১০০ জন পরিবারের মাঝে শীতবস্ত্র কম্বল বিতরণ করেন সেনাবাহিনী। এ সময় ৯৯ কম্পোজিট ব্রিগেড কমান্ডার ব্রিগেডিয়ার জেনারেল কামরুল হাসান ২৮ ইস্ট বেঙ্গল রেজিমেন্টের অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল সামি উদ্দৌলা চৌধুরী শীতবস্ত্র ও খাদ্যসামগ্রী বিতরণ করেন। আর্তমানবতার সেবায় সব সময় কাজ করে যাবেন বলে জানান সেনাবাহিনী ।