• শুক্রবার   ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১ ||

  • আশ্বিন ২ ১৪২৮

  • || ০৯ সফর ১৪৪৩

শরীয়তপুর বার্তা

সফর পিছিয়ে ২০২৩ সালের মার্চে বাংলাদেশে আসবে ইংল্যান্ড!

শরীয়তপুর বার্তা

প্রকাশিত: ৩ আগস্ট ২০২১  

আগামী সেপ্টেম্বর-অক্টোবরে তিনটি করে ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি খেলতে বাংলাদেশ আসার কথা ছিল ইংল্যান্ড দলের। কিন্তু সোমবার হঠাৎই শোনা যায়, এই সফর যথাসময়ে হচ্ছে না।

তবে মঙ্গলবার (০৩ আগস্ট) আবার নতুন খবর এলো যে, সিরিজটি পিছিয়ে গেছে প্রায় দেড় বছর। আগামী ২০২৩ সালের মার্চে বাংলাদেশ সফরে আসবে ইংল্যান্ড। খবরটি নিশ্চিত করেছে ক্রিকেটবিষয়ক শীর্ষ ওয়েবসাইট ইএসপিএন ক্রিকইনফো।

এই সফরের ব্যাপারটি ইসিবি ও বিসিবি মিলেই নিশ্চিত করেছে। যেখানে পূর্বের মতো তিনটি ওয়ানডে ও সমান ম্যাচের টি-টোয়েন্টি থাকছে।

মঙ্গলবার এক যৌথ বিবৃতিতে দুই বোর্ড জানায়, পরিকল্পনা অনুযায়ী এই সফরটি ২০২৩ সালের মার্চের প্রথম দুই সপ্তাহে অনুষ্ঠিত হবে। তিনটি ওয়ানডে ও তিনটি টি-টোয়েন্টি যথাক্রমে ঢাকা ও চট্টগ্রামে আয়োজিত হবে।

এদিকে বিসিবি জানিয়েছে, নতুন এই প্রস্তাবটি ইসিবির কাছ থেকে এসেছে। অবশ্য ক্রিকইনফো জানাচ্ছে, ইসিবির এক সূত্র দাবি করেছে সফর স্থগিত করার বিষয়টি বিসিবির অনুরোধেই হয়েছে। বাংলাদেশের বর্তমান করোনা পরিস্থিতির কারণেই এই ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে।

যেখানে সফর স্থগিত হওয়ায় দুদলের অনেক ক্রিকেটারই ১৯ সেপ্টেম্বর থেকে সংযুক্ত আরব আমিরাতে আইপিএলের বাকি অংশে খেলতে পারবে। এর আগে এ বছরের শুরুতে ভারতে জৈব-সুরক্ষার ভেতরেও ক্রিকেটাররা করোনায় আক্রান্ত হওয়ায় আইপিএল স্থগিত করা হয়। পরে এটির বাকি অংশ আমিরাত ও কিছু ম্যাচ ওমানে পরিচালনার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

ইসিবি এর আগে জানিয়েছিল বাংলাদেশ সফরে না আসলেও ইংল্যান্ডের কোনো ক্রিকেটারকে আইপিএলে খেলার অনুমতি দেওয়া হবে না।  কিন্তু ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের চাপ ও তদবিরের কারণে সেই অবস্থান থেকে ইসিবি সরে আসতে যাচ্ছে বলে জানিয়েছে ক্রিকইনফো। ফলে এবার আইপিএলের বাকি অংশে দেশটি তাদের ক্রিকেটারদের সবুজ সংকেত দিতে যাচ্ছে। টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের আগে এই টুর্নামেন্টে তাদের ভালো কাজে দেবে বলে আশা প্রকাশ করা হচ্ছে।